পাসের হার ও জিপিএ-৫ উভয়ই কমেছে

0
1158

২০১৭ সালের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমানের পরীক্ষায় পাসের হার ও জিপিএ-৫—দুটোই কমেছে।

এবার ১০টি শিক্ষা বোর্ডে পাসের হার ৮০ দশমিক ৩৫ শতাংশ। গতবার এই হার ছিল ৮৮ দশমিক ২৩ শতাংশ।

এবার এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ৪ হাজার ৭৬১ জন পরীক্ষার্থী। গতবারের চেয়ে এই সংখ্যা কমেছে পাঁচ হাজার।

আজ বৃহস্পতিবার সকাল ১০টার দিকে এই পরীক্ষার ফলাফলের অনুলিপি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে তুলে দেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। এ সময় বিভিন্ন বোর্ডের চেয়ারম্যানরা উপস্থিত ছিলেন।

পরে পরীক্ষার ফলাফলের বিষয়ে সংক্ষিপ্ত তথ্য জানান শিক্ষামন্ত্রী।

নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, এবার ১০ বোর্ডে মোট পরীক্ষার্থী ছিল ১৭ লাখ ৮১ হাজার ৯৬২ জন। পাস করেছে ১৪ লাখ ৩১ হাজার ৭২২ জন।

মন্ত্রী জানান, এবার আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি পরীক্ষায় গড় পাসের হার ৮১ দশমিক ২১ শতাংশ। গতবার এই হার ছিল ৮৮ দশমিক ৭০ শতাংশ। অর্থাৎ, এবার পাসের হার কমেছে ৭ দশমিক ৪৯ শতাংশ।

এবার আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি পরীক্ষায় জিপিএ-৫ কিছুটা বেড়েছে বলে জানান মন্ত্রী। গতবারের চেয়ে এবার ১ হাজার ১৯৫ জন বেশি জিপিএ-৫ পেয়েছে।

এবার আটটি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এসএসসি পরীক্ষায় মোট জিপিএ-৫ পেয়েছে ৯৭ হাজার ৯৬৪ জন।

এবার দাখিলে পাসের হার ৭৬ দশমিক ২০ শতাংশ, যা গতবার ছিল ৮৮ দশমিক ২২ শতাংশ। অর্থাৎ, এবার পাসের হার কমেছে ১২ দশমিক শূন্য ২ শতাংশ।

এবার কারিগরি বোর্ডের অধীনে এসএসসি (ভকেশনাল) পরীক্ষায় পাসের হার ৭৮ দশমিক ৬৯ শতাংশ। এই হার গতবার ছিল ৮৩ দশমিক ১১ শতাংশ।

এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল আজ প্রকাশ করা হচ্ছে। এর মাধ্যমে এসব পরীক্ষার প্রায় ১৭ লাখ ৮৬ হাজার পরীক্ষার্থীর অপেক্ষা শেষ হবে।

আজ দুপুর সাড়ে ১২টায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে সংবাদ সম্মেলনে ফলাফলের বিস্তারিত জানানো হবে। বেলা দুইটায় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, ওয়েবসাইট ও মুঠোফোনে নির্ধারিত পদ্ধতিতে ফলাফল প্রকাশ করা হবে।

গত ২ ফেব্রুয়ারি এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হয়ে লিখিত পরীক্ষা শেষ হয় ২ মার্চ।